ডেস্কটপ ভার্সনের জন্য ভয়েস এবং ভিডিও কলিংয়ের সুবিধা যোগ করছে হোয়াটসঅ্যাপ। ফেইসবুকের মালিকানাধীন অ্যাপটি বৃহস্পতিবার জানিয়েছে, ইতিমধ্যে এই ফিচারের আপডেট দেয়া হয়েছে বিভিন্ন ব্যবহারকারীকে।

এই মুহূর্তে ওয়ান-টু-ওয়ান কলে কথা বলতে পারবেন ম্যাক এবং উইন্ডোজ ব্যবহারকারীরা। তবে গ্রুপকলে কথা বলতে আরও কিছুদিন অপেক্ষা করতে হবে।

করোনাভাইরাস মহামারীতে বিশ্বজুড়ে গ্রাহকেরা বাড়িতে থাকায় ভিডিও কলিংয়ের ওপর বেশি নির্ভরশীল হয়েছেন। এতে লাভবান হয়েছে ফেইসবুক মালিকানাধীন প্রতিষ্ঠানটি।

সাম্প্রতিক সময়ে বেটা সংস্করণে অনেক ফিচারই পরীক্ষা করে দেখছে হোয়াটসঅ্যাপ। এরকম একটি ফিচারে ভিডিও শেয়ার করার আগে তা ‘মিউট’ করে দিতে পারবেন ব্যবহারকারীরা। এটি বাদেও ছবি দেখার পর তা গায়েব হয়ে যাবে, এমন ফিচারও পরীক্ষা করছে মেসেজিং সেবাটি।

বড় পর্দায় কলিং ফিচার যোগ করায় ভিডিও কনফারেন্সিং সেবা জুম এবং গুগল মিটের সঙ্গেও এবার প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে পারবে সেবাটি। তবে, হোয়াটসঅ্যাপের এই খাতে প্রতিযোগিতার উদ্দেশ্য রয়েছে কি না, তা এখনো স্পষ্ট নয়।

এবারে ইংরেজি নববর্ষের প্রারম্ভে প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে ১৪০ কোটি ভয়েস ও ভিডিও কল হয়েছে বলে দাবি করেছে হোয়াটসঅ্যাপ।