অবৈধভাবে ওয়াকিটকি আমদানির দায়ে মিয়ানমারের কারাবন্দি নেত্রী অং সান সু চির বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছিল। সেই মামলার রায় ঘোষণা পিছিয়েছেন আদালত। আজ সোমবার (২০ ডিসেম্বর) সূত্রের বরাত দিয়ে খবর প্রকাশ করেছে আল-জাজিরা, ডয়চে ভেলে ও বার্তা সংস্থা এএফপি।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, রায় ঘোষণা আগামী ২৭ ডিসেম্বর পর্যন্ত স্থগিত রাখার নির্দেশ দিয়েছেন মিয়ানমারের একটি সামরিক আদালত। তবে পেছানোর কারণ হিসেবে কোনো ধরনের ব্যাখ্যা দেওয়া হয়নি।

জান্তা সরকারের একটি বিশেষ আদালতে সু চির বিচার হচ্ছে। সেখানে কোনো সাংবাদিকের প্রবেশের অনুমতি নেই। এমনকি সু চির আইনজীবীদের গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলায় নিষেধাজ্ঞা রয়েছে।

এর আগে গত ফেব্রুয়ারিতে সামরিক বাহিনীর বিরুদ্ধে ভিন্নমতাবলম্বীদের উসকানি দেওয়া ও করোনাভাইরাসের বিধিনিষেধ ভাঙার দায়ে সু চির বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়। এরপর থেকেই কারাগারে রয়েছেন তিনি। সম্প্রতি একটি মামলায় তাকে চার বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। তবে পরবর্তীতে সাজা কমিয়ে দুই বছর করেন সেনাপ্রধান মিন অং হ্লাইং।